0 টি ভোট
"রসায়ন" বিভাগে করেছেন (267 পয়েন্ট)
মিশ্র পদার্থ বলতে কি বোঝায়?

1 উত্তর

0 টি ভোট
করেছেন (3.6k পয়েন্ট)
পদার্থঃ আমরা চোখে দেখতে পাই বা না পাই, যার ভর আছে, যা স্থান দখল করে, যা বল প্রয়োগে বাধার সৃষ্টি করে এবং যার অভিকর্ষ বা মহাকর্ষ আকর্ষন বল আছে তাকে পদার্থ বলে।
সাধারণত আমরা দু চোখে যা কিছু দেখতে পায় তার অধিকাংশ যেমন মাটি পানি, ইট, পাথর, লোহা, চেয়ার টেবিল, টাকা-পয়সা সবকিছুই পদার্থ। আবার যা চোখে দেখতে পাইনা যেমন বাতাস তাও পদার্থ। আবার দেখার সবকিছুই পদার্থ নয়, যেমন নীল আকাশ, মরিচীকা, আলোকচ্ছটা ইত্যাদি পদার্থ নয়।

পদার্তের প্রকারভেদঃ বিভিন্ন দিক থেকে পদার্থের শ্রেণীবিন্যাস করা যায়। তবে সাধারণত গাঠনিক দিক দিয়া মৌলিক পদার্থ যৌগিক পদার্থ ও মিশ্র পদার্থ এই তিন ভাগে ভাগ করা যায়। এছাড়া খাটি বস্তু বায়বীয় পদার্থ, তরল পদার্থ ইত্যাদি পদার্থের দশা বা অবস্থা মাত্র। আবার জীব জগতের ক্ষেত্রে পদার্থ দুই প্রকার যেমন রাসায়নিক পদার্থ ও জৈব পদার্থ। জৈব পদার্থের মধ্যে মানুষ সহ সকল প্রকার প্রাণি উদ্ভিদ বা জীবের দেহ সবকিছুই পদার্থ।

তবে এসকল যতই পদার্থের শ্রেণিবিন্যাস থাকুক না কেন মৌলিক ভাবে পদার্থের সীমাবদ্ধতা আছে। এই পর্যন্ত প্রকৃতিতে পাওয়া মোট মৌলিক পদার্থের পরিমান ৯২ টি, তবে নতুন আরও একটি পদার্থ পাওয়া গেছে। যেমন সোনা, লোহা, তামা, অক্সিজেন ইত্যাদি। এছাড়া গবেষণাগারে সংশ্লেষিত বা অস্থায়ীভাবে শনাক্তকৃত পদার্থ পাওয়া গেছে ২৪ টির মত। মতান্তরে ২৫ টি।
অন্য যত পদার্থ আমরা দেখিনা কেন তার সব এই সকল মৌলিক পদার্থের একাধিক মিশ্রনে তৈরি।

যৌগিক পদার্থঃ রাসায়নিক ভাবে একাধিক মৌলিক পদার্থ বন্ধন ঘঠনের মাধ্যমে মিশ্রিত হয়ে অনুত বৈশিষ্ট্যের যে পদার্থ তৈরি করে তাকে যৌগিক পদার্থ বলে। ( এই সংজ্ঞাটি পরীক্ষার খাতায় লিখবেন না, এটি বোঝানোর জন্য একটি সংজ্ঞা)
যেমন পাথর। এটি আসলে ক্যালসিয়াম কার্বনেট অর্থাৎ ক্যালসিয়াম, কার্বন, ও অক্সিজেন এই তিনটি মৌলিক পদার্থ রাসায়নিক ভাবে বন্ধন গঠন করে তৈরি হয়েছে।

মিশ্র পদার্থঃ যখন একাধিক মৌলিক বা যৌগিক পদার্থ একসাথে এমন ভাবে মিশে যায় যে তাদের হয়ত আলাদা ভাবে চিহ্নিত করা যায় কিন্তু সাধারণ অবস্থায় পৃথক করা যায়না। এবং যারা একসাথে শুধু পাশাপাশি অবস্থান করে। নিজেদের মধ্যে মিশে নতুন কোন ধর্ম বা বৈশিষ্ট্য প্রদর্শন করেনা। তখন ঐ পদার্থের সমন্বিত অবস্থাকে মিশ্র পদার্থ বলে।
যেমন বাতাস। এখানে অক্সিজেন নাইট্রোজেন, কার্বনডাই অক্সাইড এক সাথে মিশে আছে। কিন্তু এরা রাসায়নিক ভাবে একটি যৌগ বা বন্ধন গঠন করেনি, শুধু এরা একে অন্যের পাশে অবস্থান করে আছে। আবার চিনি বা লবনের মধ্যে বালি মেশালে তাও মিশ্র পদার্থ হবে।
মাটি একটি মিশ্র পদার্থ। কারন মাটিতে নানা উপাদান একসাথে মিশে আছে যা আমরা সাধারণ ভাবে আলাদা করতে না পারলেও বিভিন্ন পদ্ধতিতে সহজে আলাদা করা যায়, যেমন ছাকন, বাষ্পীভবন ইত্যাদি। কিন্তু যৌগিক পদার্থের ক্ষেত্রে সহজে আলাদা করা যায়না।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি ভোট
1 উত্তর
06 ফেব্রুয়ারি "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন mitu (267 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
1 উত্তর
23 নভেম্বর 2020 "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন আলো (661 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
2 টি উত্তর
06 জুলাই 2019 "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন MR. Bin (81 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
1 উত্তর
06 জুলাই 2019 "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন MR. Bin (81 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
0 টি উত্তর
30 এপ্রিল "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন mitu (267 পয়েন্ট)
5 Online Users
0 Member 5 Guest
Today Visits : 4031
Yesterday Visits : 2293
Total Visits : 5081748
...