0 টি ভোট
"রসায়ন" বিভাগে করেছেন (177 পয়েন্ট)
জারন কি?

বিজারণ কি?

1 উত্তর

0 টি ভোট
করেছেন (445 পয়েন্ট)
সম্পাদিত করেছেন

জারণঃ যে রাসায়নিক বিক্রিয়ায় কোনো অণু, পরমাণু বা আয়ন এক বা একাধিক ইলেকট্রন ত্যাগ করে তাকে জারণ বলে । জারণ অর্থ ইলেকট্রন ত্যাগ করা । যেমন— সোডিয়াম বা Na পরমাণু বাইরের কক্ষপথের একটি ইলেকট্রন ত্যাগ করে Na আয়নে পরিণত হয় । এখানে Na একটি ইলেকট্রন ত্যাগ করেছে বলে Na জারণ বিক্রিয়া সম্পন্ন করেছে।


 সমীকরণটি এরকম,

                               Na0 - e → Na+

যেখানে সোডিয়া একটি ইলেকট্রন ত্যাগ করে জারণ বিক্রিয়া ঘটিয়েছে।                              

বিজারণঃ যে রাসায়নিক বিক্রিয়ায় কোনো অণু, পরমাণু বা আয়ন এক বা একাধিক ইলেকট্রন গ্রহণ করে তাকে বিজারণ বলে । বিজারণ অর্থ ইলেকট্রন গ্রহণ করা । যেমন— Cu2+ আয়ন 2টি ইলেকট্রন গ্রহণ করে Cu পরিণত করে। 
অর্থাৎ
                               Cu2+ + 2e →  Cu0 

জারকঃ যে পদার্থ রাসায়নিক বিক্রিয়া কালে অন্য পদার্থকে জারিত করে নিজে বিজারিত হয় তাকে জারক পদার্থ বলে ।  বিক্রিয়ার ফলে জারক দ্রব্যের জারণ সংখ্যা হ্রাস পায় । যেমন— CuO এবং H2 -এর বিক্রিয়াটিতে জারক দ্রব্য CuO, কারণ CuO হাইড্রোজেনকে পানিতে জারিত করেছে এবং নিজে বিজারিত হচ্ছে ধাতব কপারে ।

                                            CuO + H2 → Cu ↓+ H2O

বিজারক পদার্থঃ রাসায়নিক বিক্রিয়ার সময় যে পদার্থ অন্য পদার্থকে বিজারিত করে নিজে জারিত হয় তাকে বিজারক পদার্থ বলে । ইলেকট্রনীয় মতবাদ অনুযায়ী, বিজারক পদার্থ ইলেকট্রন ত্যাগ করে নিজে জারিত হয় এবং অপরকে বিজারিত করে, তার ফলে বিজারক দ্রব্যের জারণ সংখ্যা বৃদ্ধি পায় । যেমন— CuO এবং H2 -এর বিক্রিয়ায় বিজারক দ্রব্য H2 ; কারণ H2, CuO -কে বিজারিত করে ধাতব কপারে এবং নিজে জারিত হয় পানিতে ।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি ভোট
1 উত্তর
27 জানুয়ারি "রসায়ন বই" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন mitu (268 পয়েন্ট)
0 টি ভোট
1 উত্তর
10 জুলাই 2020 "রসায়ন" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Lamyea Noor (390 পয়েন্ট)
2 Online Users
0 Member 2 Guest
Today Visits : 8483
Yesterday Visits : 2293
Total Visits : 5086195
...