প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করুন নিবন্ধন বা রেজিষ্ট্রেশন ছাড়াই
+2 টি ভোট
"পদার্থ বিজ্ঞান বই" বিভাগে করেছেন (1.1k পয়েন্ট)

1 উত্তর

0 টি ভোট
করেছেন (3k পয়েন্ট)
মরীচিকা হচ্ছে একটি দৃষ্টিভ্রম ঘটনা যা আলোর পূর্ণ অভ্যন্তরীণ প্রতিফলনের ফল। 

আলোকরশ্মি যখন ঘন মাধ্যম থেকে হালকা মাধ্যমে প্রবেশ করে তখন প্রতিসরণের দরুণ অভিলম্ব থেকে দূরে সরে যায়। এই সরনের মান যখন ক্রান্তি কোণের চেয়ে বড় মানের কোণে বিভেদতলে আপতিত হয় তখন প্রতিসরিত না হয়ে প্রথম মাধ্যমেই ফিরে আসে একে পূর্ণ অভ্যন্তরীণ প্রতিফলন বলে।

মরুভূমিতে দিনের বেলায় দেখা যায় এই মরীচিকা। এটা আসলে এক রকমের দৃষ্টিভ্রম। মরুভূমিতে পথিকদের কাছে মনে হয় তার সামনেই অল্প দূরত্বে পানি রয়েছে। কিন্তু সামনে গেলেই দেখা যায় যে সেখানে আসলে কোন পানি নেই। পথিক কখনোই সেই পানির কাছে পৌঁছাতে পারে না কারন এটি একটি আলোকীয় ঘটনা মাত্র।

কারন ব্যাখ্যাঃ পিচ ঢালা রাজপথ বা মরুভূমিতে দিনে সূর্যের আলো ও তাপে বায়ু উত্তপ্ত হয়ে যায়। কিন্তু মাটি থেকে উপরের দিকে এই গরম কমতে থাকে ফলে বাতাসে হালকা ও ঘন বাতাসের লেয়ার তৈরি হয়। ধরি, দূরে কোন গাছ A থেকে আলোকরশ্মি পথিকের চোখে আসার সময় এই ভিন্ন ভিন্ন ঘনতর মাধ্যম থেকে লঘুতর মাধ্যমে প্রবেশ করতে করতে আসে এবং প্রতিটি ঘনত্বের লেয়ারে আলো আপতিত হয়ে প্রতিসরিত হতে হতে আসে, ফলে বাতাসের মধ্য দিয়ে আসা প্রতিসরিত রশ্মিটি তার অভিলম্ব থেকে দূরে সরে যেতে থাকে। এভাবে বাঁকতে বাঁকতে একসময় এমন একটা স্তরে আসে যখন আপতণ কোণ ক্রান্তি কোণের চেয়ে বড় হয়ে যায়। এইসময় আলোক রশ্মির প্রতিসরণ না হয়ে পূর্ণ অভ্যন্তরীণ প্রতিফলন ঘটবে এবং আলোকরশ্মি উপরের দিকে উঠে বাঁকা পথে পথিকের চোখে পৌঁছাবে। এখন এই রশ্মিকে যদি পেছনের দিকে বাড়ানো হয় তাহলে মনে হবে যে সেটি B বিন্দু থেকে আসছে। ফলে B অবস্থানে তার উল্টা বিম্ব দেখা যাবে। এইভাবে আকাশ বা দূরবর্তী গাছপালা, ঘরবাড়ি সবকিছুরই উল্টা বিম্ব দেখা যাবে। আবার বড় পরিসরের বাতাস প্রবাহমান থাকায় গরম ও ঘনত্ব ভিন্ন ভিন্ন থাকে এবং প্রতিটি লেয়ার থেকে ভিন্ন ভিন্ন প্রতিসরিত আলোক রশ্মি একই সাথে চোখে পৌছায়। ফলে একটি কম্পনমান দৃশ্য অনুভত হয়। মনে হবে পানির ঢেউ হচ্ছে কিন্তু পথিকের চোখ আলোর এই ঘটনা ধরতে পারে না। তার কাছে মনে হয় যেন ভূপৃষ্ঠ বা পানির উপর থেকে আলোর প্রতিফলন হচ্ছে। সে মনে করবে যে সামনে কোন জলাশয় আছে এবং তাতে প্রতিফলন হচ্ছে। পথিকের কাছে জলাশয়ের দূরত্ব সবসময় একই মনে হবে। এই দূরত্ব নির্ভর করবে ভূপৃষ্ঠ থেকে পথিকের চোখের উচ্চতার উপর। আর এভাবেই ঘটে মরীচিকা সৃষ্টির ঘটনা।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

0 টি ভোট
1 উত্তর
09 মে 2020 "পদার্থ বিজ্ঞান বই" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Emu Akter (52 পয়েন্ট)

7 Online Users
1 Member 6 Guest
Online Members
Today Visits : 4613
Yesterday Visits : 6520
Total Visits : 3715319

বয়স গণনা করুন





     বয়স : 0 বছর     
            0 মাস
            1 দিন
...